বিনোদন ডেস্ক : 
 
'আব্বা' বলে যেন সব সময় ডাকতে পারি এই দোয়া করবেন: কাজী মারুফ
 
'গত ২৪ ঘন্টা খুবই অসহায় বোধ করছি। বিশ্ববিখ্যাত চিকিৎসকদের বোর্ড বাবার চিকিৎসায় কাজ করছেন। তবুও ভয়ের ঠাণ্ডা স্রোত বয়ে যাচ্ছে আমার ভেতরে। মাথার উপরে ছায়াহীন অবস্থায় নিজেকে আমি কল্পনাও করতে পারি না যে।' ঢালিউডের দর্শক নন্দিত নির্মাতা কাজী হায়াৎ-এর ছেলে অভিনেতা কাজী মারুফ আজ (৮ জানুয়ারি) তাঁর বাবাকে নিয়ে ফেসবুক স্ট্যাটাসে এমনই বেদনাঘন কথা লিখেছেন।

কাজী হায়াৎ-এর ঘাড়ের একটি রক্তনালি ব্লক হয়ে গেছে। উন্নত চিকিৎসার জন্য তিনি নিউইয়র্কে গেছেন গত ২২ ডিসেম্বর। সেখানে তাঁর সঙ্গে আছেন ছেলে কাজী মারুফ।

তিনি স্ট্যাটাসে আরও লিখেছেন, আমার বাবার বিরুদ্ধে একটা কথা শুনতাম সব সময়, আমার আব্বা অনেক রাগি। যাদের উপর রাগ করতো তাদের হয়তো ভালোও বাসতো কোনো ভাবে। আমার বেসিক্যালি কিছু ভালো লাগছে না। জানিনা কেন আজ জীবনে প্রথম বার খুব অস্থিরতা অনুভব করছি। আমার মনে পড়ে ২০০৫'র ১৪ই ফেব্রুয়ারি আব্বুর ওপেন হার্ট সার্জারি হয়েছিল, 'ওটি' গেটের বাইরে দাড়িয়েছিলাম ৪ ঘন্টা। যখন ১ ঘন্টা পর আমার আহমেদ ফুপা বের হয়ে বললো চিন্তা কইরো না ভালো ভাবে করতেছে, একটু শান্তি পেলাম, দেয়ালে হেলান দিয়ে দাঁড়ায় থাকলাম। আরও ২ ঘন্টা পার হবার পরেও যখন কেউ বের হচ্ছিলো না রোজা মানত করলাম, সেই দিন ও রোজা ছিলাম।

মারুফ এরপর লিখেছেন, কিন্তু আজ আমি হয়তো বোকা হয়ে গেছি বা যাচ্ছি। বড় খালু ছিল, হান্নান আঙ্কেল ছিলেন (মোহাম্মদ হান্নান ) আব্বুর ফ্রেন্ড। কিন্তু আজ আমি আমাকে খুব একা পাচ্ছি। আছে, মা আছেন। বৌ আছে। আমার বলতে দ্বিধা নেই আজ আমার বৌ অনেক করেছে। আমি তাঁর প্রতি কৃতজ্ঞ। usually I don’t write much on Facebook. আজ লিখবো। আমার আব্বা- আব্বা (ইতিহাস) ছবিতে এই 'আব্বা' শব্দটা অনেক বার বলেছিতো... (তাঁকে) আমার আব্বা বলে যেন সব সময় ডাকতে পারি এই দোয়াটা করবেন।
Share To:

Tangail Darpan

Post A Comment: