আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ইউরোপীয় তদন্তকারীরা জানিয়েছেন, তারা নিশ্চিত হয়েছেন যে মিশরের সিনাইয়ে রাশিয়ার যাত্রীবাহী বিমানটি দুর্ঘটনাবশত বিধ্বস্ত হয়নি। বোমা বিস্ফোরিত হয়ে  বিমানটি বিধ্বস্ত বলে ধারণা করা হচ্ছে। তদন্তের সঙ্গে জড়িত ঘনিষ্ঠ সূত্রগুলো বলেছে, বিমানের দু’টো ব্ল্যাকবক্স বিশ্লেষণের ভিত্তিতে এ ধারণা করা হচ্ছে।

সিএনএন জানায়, ফ্লাইট ডাটা এবং ভয়েস রেকর্ডার বিশ্লেষণে দেখা গেছে প্রথমে বিমানের সবই স্বাভাবিক ছিল। কিন্তু আকাশে ওড়ার ২৪ মিনিটের মাথায় সব কিছু বদলে যায়। ব্ল্যাকবক্স দু’টোতে ধারণকৃত তথ্য থেকে জানা যায়, বিস্ফোরণের মধ্য দিয়ে হঠাৎ বিমানের ভেতরের চাপ হ্রাস পায়।

তদন্তে নিয়োজিত অপর একজন বলেছেন, বিমানের ব্ল্যাকবক্সগুলোতে বিস্ফোরণের শব্দ পাওয়া গেছে। বিমানের ইঞ্জিন খারাপ হওয়ার সঙ্গে এ শব্দের কোনো মিল নেই বলেও জানান তিনি।

ফলে ইসলামিক স্টেটের একটি শাখা বিমানটি ধ্বংস করার যে দাবি করছে তা সত্য হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

গত ৩১ অক্টোবর রুশ কোগালিমাভিয়া এয়ারলাইন্সের এয়ারবাস এ-৩২১ বিধ্বস্ত হয়ে ২২৪ আরোহীর সবাই মর্মান্তিকভাবে নিহত হয়েছেন। আরোহীদের প্রায় সবাই ছিলেন রুশ নাগরিক ।

মিশরের পর্যটন নগরী শার্ম আল-শেখ থেকে রাশিয়ার সেন্ট পিটার্সবার্গে যাওয়ার পথে এ মর্মান্তিক দুর্ঘটনা ঘটে। সিনাই উপদ্বীপের পাহাড়ি এলাকা ওয়াদি আল-জুলমাতের কাছে এ বিমান বিধ্বস্ত হয়।

এদিকে, মিশরগামী সব যাত্রীবাহী বিমানের ফ্লাইট বাতিলের নির্দেশ দিয়েছেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। উপযুক্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা বহাল না হওয়া পর্যন্ত এটি বজায় থাকবে বলে ক্রেমলিন জানিয়েছে।
Share To:

Tangail Darpan

Post A Comment: