আন্তর্জাতিক ডেস্ক :  ইয়েমেনের এডেনে প্রধানমন্ত্রী খালেদ বালাহ, দেশটির ভাইস প্রেসিডেন্ট ও সরকারি বেশ কিছু কর্মকর্তার ব্যবহৃত একটি হোটেলে কয়েক দফা রকেট হামলার ঘটনা ঘটেছে। তবে এ হামলায় এখন পর্যন্ত কোনো মন্ত্রীর হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। খবর অালজাজিরা ও বিবিসির।

ইয়েমেনে সৌদি নেতৃত্বাধীন জোটের হামলা শুরুর পর থেকে দ্বিতীয় বৃহত্তম এডেন শহরের আল কাসর হোটেলটি দেশটির সরকারের কার্যালয় হিসেবে ব্যবহৃত হচ্ছে। এর আগে গত মার্চে রাজধানী সানায় হুথি বিদ্রোহীরা আক্রমণ শুরু করলে দেশটির প্রেসিডেন্ট আবদ রাব্বু মনসুর হাদি নেতৃত্বাধীন সরকার সৌদি আরবে পালিয়ে যায়।

গত জুলাইয়ে সরকারি বাহিনীর হামলার মুখে হুথি বিদ্রোহীরা শহরটির থেকে পিছু হটতে বাধ্য হয়। সরকারি সেনারা এডেনের নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার পর দেশটির নির্বাসিত প্রেসিডেন্ট আবদ রাব্বু মনসুর হাদির সরকারের সদস্যরা শহরটিতে ফিরে আসে। এরপর থেকে আল কাসর হোটেলটিকে সরকারি কার্যালয় হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছিলো।

তবে হামলার সময়ে আল কাসর হোটেলে হাদি ও তার সরকারের কোনো সদস্য ছিলেন না। জাতিসংঘের তথ্য অনুযায়ী, গত ছয় মাসে ইয়েমেনে অন্তত চার হাজার ৯০০ মানুষের প্রাণহাণি ঘটেছে। এর মধ্যে দুই হাজার ২০০ জন বেসামরিক নাগরিক রয়েছেন।
Share To:

Tangail Darpan

Post A Comment: