ডেক্স নিউজ : জেলার ঢাকা-সময়মনসিংহ মহাসড়কের নয়নপুর বাজারে বাসের চাপায় নারীসহ দুই জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরো পাঁচ জন। এছাড়া অপর এক সড়ক দুর্ঘটনায় আরো পাঁচ জন আহত হন। শুক্রবার সকাল পৌনে ৮টা ও সাড়ে ৬টার দিকে এ দুর্ঘটনা দুটি ঘটে।

নিহত এক জনের নাম পাওয়া গেছে। তাদের মধ্যে শ্রীপুর উপজেলার গাজীপুর ইউনিয়নের ফরিদপুর গ্রামের ইমান আলী ছেলে আব্দুর রশিদ (৬০)। এছাড়া অজ্ঞাত এক নারী (৪০)। ওই নারীর মরদেহ মাওনা হাইওয়ে থানাতে রাখা হয়েছে। আব্দুর রশিদকে তার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

মাওনা হাইওয়ে থানার উপ-পরিদর্শক সেকান্দর আলী ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, সকালে ঢাকা যাওয়ার জন্য নয়নপুর বিআরটিসি বাসস্ট্যান্ডে সিএনজি অটোরিকশাসহ কয়েক জন দাঁড়িয়েছিলেন। এরমধ্যে হঠাৎ ময়মনসিংহ থেকে ঢাকাগামী একটি বিআরটিসি বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সিএনজি অটোরিকশাসহ দাঁড়িয়ে থাকা লোকদের চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই এক নারীসহ দুই জন নিহত হন। এছাড়া এ দুর্ঘটনায় আহত হন আরো পাঁচ জন। এ ঘটনায় স্থানীয়রা সড়ক অবরোধ করলে যানজটের সৃষ্টি হয়। পরে পুলিশ গিয়ে তাদের হটিয়ে যান চলাচল স্বাভাবিক করেন।

আহতদের উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদিকে, উপজেলার গাজীপুর ইউনিয়নের দক্ষিণ ধনুয়া গ্রামের নূরুল হকের ছেলে মোশারফকে (৩৮) গুরুতর আহত অবস্থায় ঢাকা মেডিকেলে পাঠানো হয়েছে।

এ ব্যাপারে অভিযোগ দিলে মামলা নেয়া হবে বলে জানান এসআই সেকান্দর আলী।

অপরদিকে, কালিয়াকৈর ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার অপূর্ব বল জানান, শুক্রবার সকাল সাড়ে ৬টার দিকে ঢাকা-টাঙ্গাইল সড়কের হরতকিরচালা এলাকায় ট্রাক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে একটি মাইক্রোবাস ও অটোরিকশাকে ধাক্কা দেয়। এ সময় মাইক্রোবাসের তিনজন ও অটোরিকশার দুজন যাত্রী আহত হন। আহতদের কালিয়াকৈর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠানো হয়েছে।
Share To:

Tangail Darpan

Post A Comment: