বাল্য বিয়ে করতে গিয়ে বরসহ আটক ৩ - Tangail Darpan | Online Bangla Newspaper 24/7 | টাঙ্গাইল দর্পণ-অনলাইন বাংলা নিউজ পোর্টাল ২৪/৭ বাল্য বিয়ে করতে গিয়ে বরসহ আটক ৩ - Tangail Darpan | Online Bangla Newspaper 24/7 | টাঙ্গাইল দর্পণ-অনলাইন বাংলা নিউজ পোর্টাল ২৪/৭
সোমবার, ১৭ আগস্ট, ২০১৫

বাল্য বিয়ে করতে গিয়ে বরসহ আটক ৩

জেলা নিউজ ডেক্স : জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে বাল্য বিয়ের বিরুদ্ধে রুখে দাড়িয়েছে এলাকাবাসী, প্রশাসন এবং সাংবাদিকরা। বাল্য বিয়ে প্রতিরোধে সরিষাবাড়ীবাসী পূর্বের চেয়ে বর্তমানে অনেক বেশী সোচ্চার। রোববার রাতে ফুলদহ নয়াপাড়া গ্রামে এমন একটি বাল্য বিয়ে সম্মিলিত প্রতিরোধ করা সম্ভব হয়েছে। ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ভ্রাম্যমান আদালত বাল্য বিয়ের অপরাধে ৩ জনের জেল ও ৩ জনের জরিমানার আদেশ দেন।

পুলিশ ও ভ্রাম্যমান আদালত সুত্রে জানা গেছে উপজেলার ভাটারা ইউনিয়নের ফুলদহ নয়াপাড়া গ্রামের ইউনুছ আলীর দশম শ্রেনীতে পডুয়া কন্যা মুক্তার (১৫) সাথে পাশের গ্রামের মহিষাভাদুরিয়া গ্রামের খলিলুর রহমানের ছেলে শামীম আকন্দ (২২)এর সাথে বিয়ের আয়োজন চলছিল।

সরিষাবাড়ী থানা পুলিশ খবর পেয়ে বর শামীম আকন্দ, বরের পিতা খলিলুর রহমান, কনের দুলাভাই বিল্লাল হোসেন ও দাওয়াত খেতে আসা জহুরুল ইসলাম, চান মিয়া, হযরত আলীকে পুলিশ আটক করে থানায় নিয়ে আসে।

পরে উপজেলা র্নিবাহী অফিসার ও ম্যাজিষ্ট্রেট ফ্লোরা বিলকিস জাহান সরিষাবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ বিল্লাল উদ্দিনের অফিস কক্ষে ভ্রাম্যমান আদালত বসান। ভ্রাম্যমান আদালত বাল্য বিয়ে করার অপরাধে বর শামীম আকন্দকে ২০ দিনের জেল, পিতা খলিলুর রহমানের ১ মাসের ও কনের দুলভাই বিল্লাল হোসেনকে ১মাসের বিনা শ্রম কারাদন্ডের এবং দাওয়াত খেতে আসা জহুরুল ইসলাম, চান মিয়া, হযরত আলীকে ১ হাজার করে জরিমানার আদেশ দেন।

পরে সরিষাবাড়ী থানা পুলিশ বর শামীম আকন্দ ও তার পিতা খলিলুর রহমান ও কনের দুলাভাই বিল্লাল হোসেনকে কে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরন করে পুলিশ।

ছবিঃ জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে বাল্য বিয়ের কনে দশম শ্রেনীর ছাত্রী মুক্তার (১৫) সাথে পাশের গ্রামের মহিষাভাদুরিয়ার বর শামীম আকন্দ (২২)।
  • Blogger Comments
  • Facebook Comments
Item Reviewed: বাল্য বিয়ে করতে গিয়ে বরসহ আটক ৩ Rating: 5Reviewed By: Tangail Darpan
Scroll to Top